Home Malda বাবাকে বাঁচাতে গিয়ে আক্রান্ত কিশোর

বাবাকে বাঁচাতে গিয়ে আক্রান্ত কিশোর

মালদা, ২১ জুলাই : বাবাকে বাঁচাতে গিয়ে আক্রান্ত ছেলে । মালদা জেলার পুরাতন মালদা থানা বালা সাহাপুর এলাকার ঘটনায় । আক্রান্তের নাম সাগর সিং । বয়স ১১ । স্থানীয় সাহাপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণীর ছাত্র সাগর । আক্রান্ত কিশোর বর্তমানে মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে চিৎসাধীন । ঘটনায় অভিযুক্তের বিরুদ্ধে পুরাতন মালদা থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে ।

 

 

 

 

 

 

 

 

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত রাতে সাগরের বাবা শ্য়ামল সিংহ জানালা খুলে বসে ছিলেন । সেই সময় প্রতিবেশী মিলন মন্ডল ও সুবল মন্ডল তাঁকে অশ্লীল ভাষায় গালি-গালাজ করতে থাকে বলে অভিযোগ । শ্যামলবাবু ঘটনার প্রতিবাদ করলে তাঁকে মারধর শুরু করা হয় । তখনই বাবাকে বাঁচাতে যায় আক্রান্ত কিশোর । সেই সময় তাকে বেধড়ক মারধর করে তার মাথা ফাটিয়ে দেয় অভিযুক্তরা ।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

আক্রান্ত কিশোর বর্তমানে মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে চিৎসাধীন । বর্তমানে আটটি সেলাই রয়েছে তার মাথায় ।

 

 

 

 

 

 

পুলিশ জানায়, ঘটনার তদন্ত শুরু করা হয়েছে ।

Most Popular

ইন্দোনেশিয়ায় ফুটবল হাঙ্গামার কারণে বড় শাস্তি হল দুই ক্লাব আধিকারিকের

আধিকারিক ১৭৪ জনের মৃত্যুর কথা জানিয়েছিলেন।দু’দলের সমর্থকদের মারামারিতে জড়িয়ে পড়ার একাধিক ভিডিয়ো দেখা যায়।ইন্দোনেশিয়ার ফুটবল মাঠে সমর্থকদের হাঙ্গামার কারণে মৃত্যুর ঘটনায় বড় শাস্তি পেলেন...

জলের বোতলে অ্যাসিড পান করে সঙ্কটজনক শিশু, হাত জ্বলে গেল আর এক খুদের

গত ২৭ সেপ্টেম্বর পরিবারের এক সদস্যের জন্মদিন উদ্‌‌যাপন উপলক্ষে ওই রেস্তরাঁয় গিয়েছিলেন মহম্মদ আদিল নামে এক ব্যক্তি। তাঁর অভিযোগ, জলের বোতল দেন রেস্তরাঁর এক...

সবুজ বেনারসি ও গা ভর্তি গয়নায় সাজলেন শ্রাবন্তী চট্টোপাধ্যায়, শাড়ির দাম শুনলে মাথা ঘুরে যাবে

চট্টোপাধ্যায়কে প্রতিটা সাজেই এত সুন্দর দেখায় যে, তা দেখে প্রেমে পড়ে যান অনুরাগীরা। আর তা হবে না কেন? অভিনেত্রীর সৌন্দর্যের কদর তো করতেই হবে।...

মাত্র ৬৯৯এ পেয়ে যান বার্বিকিউ, ইন্ডিয়ান, চাইনিজ, রকমারি ডেজার্ট। সব মিলিয়ে ৪০রকমের খাবার পেয়ে যাবেন আপনি।

পুজোয় ডান হাতের কাজ বন্ধ রাখা যায় না। ভোজনপ্রিয় বাঙালির কাছে এটা প্রায় দুঃসাধ্য। যাঁরা সারা বছর কড়া ডায়েটে থাকেন, তাঁরাও এই কটা দিন...

Recent Comments