Home এটি দেখুন সমুদ্র তটে পড়ে বিশালাকার রহস্যময় বল! কি এটি দেখুন বিস্তারিত।

সমুদ্র তটে পড়ে বিশালাকার রহস্যময় বল! কি এটি দেখুন বিস্তারিত।

প্রতিদিনের মতো এদিনও সাগর পাড়ে নেমেছিল পর্যটকের ঢল৷ কেউ ভোরবেলা নিছক হাঁটতে বেরিয়েছিলেন, কেউ আবার সকালের স্নিগ্ধ বাতাস উপলব্ধি করতে৷ কেউ আবার সমুদ্রের নোনা হাওয়া মেখে ঝরাচ্ছিলেন ঘাম। এমন সময় আচমকা চোখ পড়ল এক রহস্যময় বস্তু। বিশালাকার এক ধাতব বল৷ তবে রাতের অন্ধকারে সাগর পাড়ে নেমে এসেছিল কোনও ইউএফও৷ এমন দৃশ্য তো আগে কেই চাক্ষুষ করেনি। এর পরই এই বলকে কেন্দ্র করে জমতে শুরু করে জল্পনার মেঘ। তবে কী নেমে এল ভিনগ্রহীরা? নাকি কোনও গুরুতর বিপদের আশঙ্কা? নাকি কোনও দৈত্যাকার প্রাণীর ডিম? এটা আসলে কী? জাপানের উপকূলীয় শহর হামামাতসুতে যেখানে পর্যটকরা ঘোরাফেরা করে সেই জায়গাতেই সম্প্রতি এই বিশালাকার বলের দেখা পাওয়া যায়।

এমনটা আগে কখনও দেখেনি স্থানীয়রা। সে কারণেই আরও বেশি করে মাথাচারা দেয় আতঙ্ক। তবে কী সত্যি কোনও অশনি সঙ্কেত? সেই আশঙ্কা থেকেই তড়িঘড়ি খবর দেওয়া হয় পুলিশে। ঘটনাস্থলে পৌঁছায় বম্ব স্কোয়াড।সর্বোপরী বলটি এতটাই ভারী যে সেটিকে ধাক্কা দিয়েও সরানো যায়নি। যা আরও উদ্বেগ বাড়িয়ে দেয়৷ পরে পুলিশ এবং বম্ব স্কোয়াড গোটা এলাকাটি ঘিরে ফেলে। শুরু হয় তদন্ত। অবশেষে জানা যায়, বস্তুটি নিরাপদ৷ সন্দেহজনক বলটি ফাঁপা এবং সেটিকে ভয় পাওয়ার কোনও কারণ নেই বলেই জানান বিশেষজ্ঞরা।

স্থানীয় কর্তৃপক্ষ স্থানীয়দের আশ্বাস দিয়ে বলেন, বস্তুটি শীঘ্রই সরিয়ে ফেলা হবে। তবে সেটি যে ঠিক ছিল তা নিয়ে সংশয় কাটেনি। বিস্মিত স্থানীয়দের কারোর মতে বিশালাকার বলটি ‘গডজিলা ডিম’ হতে পারে৷

Most Popular

পোস্ত কীভাবে এল? দেখুন বিস্তারিত

পেঁয়াজ বা রসুন ছাড়াই রান্না করা এই পদটি প্রতিটি বাঙালি পরিবারের সবচেয়ে সহজ, আরামদায়ক এবং প্রধান নিরামিষ খাবার। পোস্তবাঁটার (Posto Bata) অনন্য স্বাদ, কাঁচা...

রাস্তার ধারে গাছগুলিতে করা হয় সাদা রং ,তবে জানেন কি, কেনো করা হয় ?

রাস্তা দিয়ে পারাপার করার সময় চোখের সামনে অনেক কৌতূহল পূর্ণ জিনিসপত্র ধরা পড়ে। সেই সকল কৌতূহল জিনিসপত্র সম্পর্কে জানার ইচ্ছেও কম থাকে না। সেই...

মস্তিষ্কে অস্ত্রোপচারের পর কেমন আছেন মুকুল রায়?

তাঁর মস্তিষ্কে অস্ত্রোপচার করতে হল। আপাতত তিনি বাইপাসের ধারে একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন।সূত্রের খবর, ভুলে যাওয়া থেকে শুরু করে, ব্যালেন্সিংয়ের সমস্যা হচ্ছে প্রবীণ...

শিয়ালদহ মেন শাখায় ট্রেনের দুর্ভোগ বেশ কিছু দিন ধরেই চলছে,নাজেহাল যাত্রীরা।

সকাল ১০.৪০ মিনিটে ডাউন ভাগীরথী এক্সপ্রেস শিয়ালদহ পৌঁছানোর কথা থাকলেও, ওই ট্রেন এ দিন বিকেল চারটের পর গন্তব্যে পৌঁছোয়। ক্ষোভে ফেটে পড়েন যাত্রীরা। সকাল...

Recent Comments