Home আজকের খবর দলের বিরুদ্ধেই ক্ষোভ একাংশের

দলের বিরুদ্ধেই ক্ষোভ একাংশের

কেন্দ্রের কৃষি বিল আইন প্রত্যাহারের কর্মসূচি ও কর্মীসভার মধ্যেই মালদার একাংশ দলীয় নেতাদের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগড়ে দিল কালিয়াচক তৃণমূল নেতৃত্ব ।

এমনকি দক্ষিণ মালদার কংগ্রেস দলের সাংসদ এবং সংশ্লিষ্ট এলাকার বিধায়কের চরম সমালোচনা করেছেন স্থানীয় তৃণমূল নেতারা। রবিবার কালিয়াচক ১ ব্লকের জালালপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের বড়নগর ডাঙ্গার মাঠে তৃণমূলের উদ্যোগে কর্মী সভাটি অনুষ্ঠিত হয় ।

সেখানেই কেন্দ্রের বিজেপি সরকারের কৃষি বিল আইন প্রত্যাহারের বিষয় নিয়ে বক্তব্য রাখতে গিয়ে কালিয়াচকের বিভিন্ন গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকার অঞ্চল কমিটি গঠন নিয়ে একরাশ ক্ষোভ উগরে দেন উপস্থিত নেতারা। এদিনের এই সভায় উপস্থিত হয়েছিলেন কালিয়াচক ১ পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি আতিউর রহমান, ছিলেন পঞ্চায়েত সমিতির সদস্য হাসেম আলী, উত্তম চৌধুরী, স্থানীয় তৃণমূল নেতা আবু সুফিয়ান, মিরাজুল বসনি সহ অন্যান্যরা।

এদিন বক্তব্য রাখতে গিয়ে তৃণমূল পরিচালিত পঞ্চায়েত সমিতির সদস্য হাসেম আলী দলের মালদার নেতাদের একাংশের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দেন। তিনি বলেন, অসময়ে এবং মানুষের বিপদের সময় মালদার একাংশ নেতারা পাশে থাকে না । ঝড় , জল বৃষ্টিতেই এলাকার পঞ্চায়েত সদস্য থেকে পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতিকে কাজ করতে হচ্ছে এবং মানুষের পাশে থাকতে হচ্ছে।

কিন্তু যারা অন্য দল থেকে তৃণমূলে যোগ দিচ্ছেন, তাদেরকে অঞ্চল কমিটির মধ্যে রাখা হয়েছে। এবং তাদেরকে বিশেষ করে সুযোগ করে দেওয়া হচ্ছে । এরকম ভাবে চলতে থাকলে মানুষ মেনে নেবে না। এতে করে আমাদের দলের ভাবমূর্তি নষ্ট হচ্ছে। আমরা দলনেত্রী তথা মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির আদর্শ এবং নীতি নিয়ে দল করছি । আগামী দিনেও সেই আদর্শ মেনে মুখ্যমন্ত্রীর অনুপ্রেরণায় দল করে যাব।

Most Popular

দশমীর রাত্রে চুরি করতে এসে আটক হল চোর

ঘটনাটি হলদিয়ার ভবানীপুর থানা এলাকার।মণ্ডপে মণ্ডপে মায়ের বিদায়ের প্রস্তুতি। সেখানেই সকলের মন। সেই সুযোগকেই কাজে লাগানোর চেষ্টা করেছিল একদল যুবক। দরজা ভেঙে ঘরে ঢুকে...

Hero লঞ্চ করল আকর্ষণীয় দামে বাজারে নতুন Electric Cycle

ইলেকট্রিক গাড়ি এবং বাইকের এখনও আকাশছোঁয়া দাম। যা কিনা অনেক মধ্যবিত্তেরই নাগালের বাইরে। ফলে তাঁদের বিকল্প হিসেবে রয়েছে ইলেকট্রিক সাইকেল ।বেশি সমস্যায় পড়ছেন মধ্যবিত্ত...

নবমীতে টিকিট কেটে কোটিপতি নদিয়ার যুবক

কোটিপতি হওয়ার স্বপ্ন তিনি দেখতেন দীর্ঘদিন ধরেই। আর এই কারণে অন্যতম 'শর্টকাট' হিসেবে তিনি বেছে নিয়েছিলেন লটারি কেনাকে। আনারুল জানান, একসময় লটারি কাটতে গিয়ে...

এটিই হল ভারতের দীর্ঘতম নামের রেল স্টেশন

প্রতিদিন যে বিশাল সংখ্যক যাত্রী রেল পরিষেবা ব্যবহার করে থাকেন, তাঁদের সুবিধার কথা মাথায় রেখে রেলের তরফেও নেওয়া হয় নানা রকমের পদক্ষেপ। এমনকি বিগত...

Recent Comments