Home Malda স্নায়ু রোগে আক্রান্ত বছর ৭-এর শিশু, নেই স্বাস্থ্যসাথী ; অর্থাভাবে বন্ধ চিকিৎসা

স্নায়ু রোগে আক্রান্ত বছর ৭-এর শিশু, নেই স্বাস্থ্যসাথী ; অর্থাভাবে বন্ধ চিকিৎসা

হরিশ্চন্দ্রপুর, ৬ অগষ্ট : জটিল স্নায়ু রোগে আক্রান্ত ৭ বছরের শিশু । অর্থাভাবে হচ্ছে না চিকিৎসা । নেই স্বাস্থ্য সাথী কার্ড । সরকারের কাছে সাহায্যের কাতর আর্জি জানিয়েছে পরিবার । ঘটনাটি মালদার হরিশ্চন্দ্রপুর-১ নম্বর ব্লকের মহেন্দ্রপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের ।

 

 

 

 

জানা যায়, দীর্ঘ ছয় বছর ধরে স্নায়ু রোগে আক্রান্ত হয়ে বিছানায় শয্যাসায়ী মহেন্দ্রপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের গাঙ্গনদীয়া গ্রামের বাসিন্দা মহম্মদ মুসাব্বি । বয়স ৭ । বাবা দিনমজুর হেদাতুল ইসলাম । টাকার অভাবে থমকে রয়েছে ছেলের চিকিৎসা । এরফলে তিলে তিলে মৃত্যুর দিকে এগিয়ে যাচ্ছে মহম্মদ মুসাব্বি । প্রতিবন্ধী সার্টিফিকেট থাকলেও মিলছে না ভাতা । হয়নি স্বাস্থ্য সাথী কার্ড‌ও । সরকারি সাহায্যের আশায় চেয়ে আছে পরিবার ।

 

 

 

 

 

অন্যদিকে, এই ঘটনায় শুরু হয়েছে রাজনৈতিক তরজা । কংগ্রেস কটাক্ষ করছে তৃণমূলকে । প্রশাসনের পক্ষ থেকে কার্ডের ব্যবস্থা করে দেওয়া হবে বলে জানানো হয়েছে ।

 

 

 

 

শিশুটির মা আজমেরী বিবি জানান, তাঁর দুই ছেলে ও এক মেয়ে । স্বামী দিনমজুর । মহম্মদ মুসাব্বি ছোট ছেলে । শিশুটি সুস্থ স্বাভাবিক ভাবে জন্ম হলেও জন্মের একবছর পর ডায়েরিয়া হয়ে যায় । এরপর থেকে শরীরে অসুখ বাসা বাঁধতে থাকে । শরীর ধীরে ধীরে অবশ হয়ে যায় । হাত পা সরু হয়ে যায় । মাথা স্বাভাবিকের তুলনায় বড়ো হতে থাকে । সব সময় বিছানায় শয্যাসায়ী হয়ে থাকে । একা চলাফেরা করতে পারে না । মালদা ও কলকাতায় চিকিৎসা করাতে নিয়ে গেলেও টাকার অভাবে দীর্ঘমেয়াদী চিকিৎসা করাতে পারেনি । ছেলেকে সুস্থ করে তুলতে যথেষ্ট টাকার প্রয়োজন । দিনমজুর স্বামীর পক্ষে এত টাকা জোগাড় করা সম্ভব না । তাই সরকারি সাহায্যের আশায় চেয়ে রয়েছি ।

 

 

হরিশ্চন্দ্রপুর ১ ব্লক বিডিও অনির্বাণ বসু বলেন, “ঘটনাটি জানতে পারলাম । খুব দুঃখজনক । আমাদের কাছে আবেদন করলে আমরা তড়িঘড়ি ব্যবস্থা করে দেব । শিশুটির দ্রুত আরোগ্য এবং সুস্বাস্থ্য কামনা করছি ।”

 

 

 

 

কংগ্রেসের অঞ্চল সভাপতি আব্দুস শোভান তীব্র কটাক্ষের সুর চড়িয়ে বলেন,” তৃণমূলের আমলে যারা কাটমানি দিতে পারবে তাদেরই শুধু কাজ হবে । এই পরিবারটি গরিব. দিতে পারেনি । তাই কাজ হয়নি । মুখ্যমন্ত্রীর স্বাস্থ্য সাথী কার্ড আছে । এমনকি বড় বড় নেতা মন্ত্রীদেরও এই কার্ড আছে । কিন্তু গরিব মানুষের নেই। এটাই এই সরকারের বাস্তব চিত্র । মানুষ আশা করি সবটা বুঝছে । আমরা ঐ পরিবারের পাশে থাকার চেষ্টা করব ।”

 

 

 

 

 

পাল্টা তৃণমূল নেতা সঞ্জীব গুপ্তা বলেন, “সংবাদ মাধ্যমের দ্বারা বিষয়টি শুনতে পেলাম । দুয়ারে সরকার প্রকল্প তে যারা আবেদন করেছে সকলে পেয়েছে । ওই পরিবারটি যদি না পেয়ে থাকে ব্যাপারটি দেখা হবে । স্বাস্থ্য সাথী কার্ডের ব্যবস্থা করে দেওয়া হবে । মাননীয় মুখ্যমন্ত্রীর আমলে সকল রাজ্যবাসী এই সুবিধা পাচ্ছে ।” কংগ্রেসের প্রত্যুত্তরে তিনি বলেন, “মিথ্যা সমালোচনা করাই এদের কাজ । কংগ্রেস নেতারা কার্ড না পেয়ে থাকলে আমরা কার্ড করে চিকিৎসার ব্যবস্থাও করিয়ে দেব ।”

 

 

 

 

 

তবে এই ধরনের ঘটনা হরিশ্চন্দ্রপুর এলাকায় বারবার দেখা যাচ্ছে । গরিব পরিবারের মানুষেরা জটিল রোগে আক্রান্ত । কিন্তু তাদের থাকছেনা স্বাস্থ্যসাথী কার্ড । পয়সার অভাবে করাতে পারছে না চিকিৎসা । যা অত্যন্ত দুঃখজনক । প্রশাসনের উচিত সরকারি প্রকল্পের সুবিধা যাতে সমাজের সব স্তরের মানুষ পায় তার জন্য তৎপর হওয়া । এই অসহায় পরিবারের পাশে দ্রুত দাঁড়ানো ।

Most Popular

ইন্টারনেটের গতি ফোর জি-র ১০০ গুণ

পঞ্চম প্রজন্মে পা রাখল দেশের মোবাইল প্রযুক্তি। শনিবার দিল্লিতে ফাইভ জি প্রযুক্তির উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী।ফাইভ জি প্রযুক্তির হাত ধরে দেশের টেলিকম ব্যবস্থা...

অন্যের স্বামীর সঙ্গে ঘনিষ্ঠতা, ভাইরাল এমএমএস… বিতর্কে জর্জরিত প্রাক্রুতি এ বার বিগ বসে

বিগ বস’-এর নতুন পর্বে অংশগ্রহণ করছেন প্রাক্রুতি মিশ্র। ওড়িয়া এই অভিনেত্রী তাই গত কয়েক দিন ধরে নতুন করে চর্চায় উঠে এসেছেন। এমএমএস বিতর্ক থেকে...

১ অক্টোবর অর্থাৎ আজ থেকে লাগু হবে নিয়ম আচমকাই টিকিটের দাম দ্বিগুণ করল রেল!

একই সময়ে প্ল্যাটফর্মে অতিরিক্ত ভিড় নিয়ন্ত্রণ ও প্রতিরোধ করতে দক্ষিণ রেলওয়ে (Southern Railways) প্ল্যাটফর্ম টিকিটের মূল্য দ্বিগুণ করেছে। অর্থাৎ ১০ টাকায় পাওয়া প্ল্যাটফর্ম টিকিটের...

গ্রেফতার কীর্তিমান ২ ডজন বিয়ে করে।

কাজের খোঁজে নানা এলাকায় ঘুরে বেড়াত। নিজের পরিচয় দিত জেসিবি চালক হিসাবে। এমনকী নিজেকে অনাথ বলেও দাবি করত। ভুয়ো পরিচয়, ভুয়ো আধার কার্ড তৈরি...

Recent Comments