Home ৬৮ কোটি টাকার ৬৮ কোটি টাকার বিশ্বের দীর্ঘতম বিলাসবহুল এই ক্রুজের মালিক কে?

৬৮ কোটি টাকার বিশ্বের দীর্ঘতম বিলাসবহুল এই ক্রুজের মালিক কে?

এই ক্রুজের সওয়ারি করতে আপনাকে ২০ থেকে ২৫ লক্ষ টাকা খরচ করতে হবে! টিকিটের দাম এত বেশি হওয়ার পরও কিন্তু ব্যপক চাহিদা রয়েছে।ভারতে শুরু হল বিশ্বের দীর্ঘতম নদী ক্রুজ। বারাণসী থেকে কলকাতা হয়ে ডিব্রুগড়ে পৌঁছাবে সেটি। যাত্রাপথে সময় লাগবে মোট ৫১ দিন। ৩৯ জন যাত্রী সওয়ারি করতে পারেন এই বিলাসবহুল ক্রুজে।জানলে অবাক হবেন যে, আগামী ২০২৪ সালের মার্চ মাস অবধি ফুল বুক হয়ে আছে ক্রুজ সার্ভিসটি।

জানেন কি এই ক্রুজ গুলোর মালিক কে? অন্তরা লাক্সারি রিভার ক্রুজ কোম্পানির মালিক রাজ সিং এই ক্রুজ গুলো নির্মাণ করেছেন।গঙ্গা বিলাস ক্রুজের রাজকীয় যাত্রার সাথে ভারতীয় সংস্কৃতি দেখার জন্য লোকেরা এত মোটা অঙ্কের অর্থ দিতেও প্রস্তুত। শুধু তাই না, সেখানে যেসমস্ত সুযোগ সুবিধা রয়েছে সেগুলোও অনন্য। রাজ সিং ১৫ বছর ধরে রয়েছেন এই ব্যবসাতে। একটি অনুষ্ঠানে এই প্রকল্পের ব্যপারে চিন্তাভাবনা করা হয়। আসলে সেখানে উপস্থিত ছিলেন সর্বানন্দ সোনোয়ালও। সেখানেই বারাণসী এবং ডিব্রুগড়ের মধ্যে ক্রুজ চালানোর কথা উঠে আসে।এই ক্রুজ তৈরির দায়িত্বে রয়েছেন ডাঃ অনিপূর্ণা গণিমালা। যিনি ভারতীয় সংস্কৃতি ও ঐতিহ্যের কথা মাথায় রেখে এটি তৈরি করেছেন।

ক্রুজের সমস্ত কিছুর ওপরই ভারতীয় সংস্কৃতির ছাপ স্পষ্ট। রাজ সিং অবশ্য এটা স্পষ্ট করে দেন যে, ক্রুজে কোনো নন-ভেজ খাবার অথবা অ্যালকোহল পরিবেশন করা হবেনা।ক্রুজটি নিজের যাত্রাপথে দেশের উত্তরপ্রদেশ, বিহার, পশ্চিমবঙ্গ পেরিয়ে বাংলাদেশ হয়ে অসমে পৌঁছাবে। যাত্রাপথে সেটি মোট ২৭টি নদীর ওপর দিয়ে যাবে।

Most Popular

পোস্ত কীভাবে এল? দেখুন বিস্তারিত

পেঁয়াজ বা রসুন ছাড়াই রান্না করা এই পদটি প্রতিটি বাঙালি পরিবারের সবচেয়ে সহজ, আরামদায়ক এবং প্রধান নিরামিষ খাবার। পোস্তবাঁটার (Posto Bata) অনন্য স্বাদ, কাঁচা...

রাস্তার ধারে গাছগুলিতে করা হয় সাদা রং ,তবে জানেন কি, কেনো করা হয় ?

রাস্তা দিয়ে পারাপার করার সময় চোখের সামনে অনেক কৌতূহল পূর্ণ জিনিসপত্র ধরা পড়ে। সেই সকল কৌতূহল জিনিসপত্র সম্পর্কে জানার ইচ্ছেও কম থাকে না। সেই...

মস্তিষ্কে অস্ত্রোপচারের পর কেমন আছেন মুকুল রায়?

তাঁর মস্তিষ্কে অস্ত্রোপচার করতে হল। আপাতত তিনি বাইপাসের ধারে একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন।সূত্রের খবর, ভুলে যাওয়া থেকে শুরু করে, ব্যালেন্সিংয়ের সমস্যা হচ্ছে প্রবীণ...

শিয়ালদহ মেন শাখায় ট্রেনের দুর্ভোগ বেশ কিছু দিন ধরেই চলছে,নাজেহাল যাত্রীরা।

সকাল ১০.৪০ মিনিটে ডাউন ভাগীরথী এক্সপ্রেস শিয়ালদহ পৌঁছানোর কথা থাকলেও, ওই ট্রেন এ দিন বিকেল চারটের পর গন্তব্যে পৌঁছোয়। ক্ষোভে ফেটে পড়েন যাত্রীরা। সকাল...

Recent Comments